SEO-post

কেন আপনি SEO শিখছেন বা শিখতে চাচ্ছেন?

আমি আজ একটু অন্য ধরনের পোস্ট করছি। এই পোস্টটি আমি লিখছি আমার অনেক কাছের বাই-বোনদের জন্য যারা শুধুমাত্র শুনেছে SEO শিখুন ইনকাম করুন। অনেকেই হয়তোবা বিভিন্ন ট্রেনিং সেন্টারে গিয়ে শিখেছে এবং বসে আছে কিভাবে কি করবো এখন। SEO তো জানি এখন কি করবো? 

এমন সব ভাই-বোনদের জন্য আমার এই লিখা । আপনি যদি ওই দলের সদস্য হয়ে থাকেন তাহলে আমার এই পোস্টই পড়ুন কিছু আইডিয়া পাবেন। 

এবং আপনি যদি নতুন হয়ে থাকেন এবং SEO শিখতে চাচ্ছেন এমন হয়ে থাকেন তাহলে অবশ্যই আমার এই পোস্ট আপনাকে সাহায্য করবে।

প্রথমে আপনার জানতে হবে SEO কি?

এসইও (SEO) বা সার্চ ইঞ্জিন অপটিমা-ইজেশন বলতে বুঝায় বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিনে একটি সাইটকে তুলে ধরা সাইটে কি আছে তা সার্চ ইঞ্জিনকে বুঝানো। আমরা যেকোনো কিছু লিখে গুগলে সার্চ দিলে দেখা যাবে অনেক পরিমানে ফলাফল পাওয়া যায় এর মধ্যে প্রথম ২/৩ পেজে যে সাইট গুলো আমরা পাই সেগুলোই আমরা দেখে থাকি।

এটাই হল এসইও মানে সাইটে এসইও করলে সার্চ ইঞ্জিন আপনার সাইটকে আগে নিয়ে আসবে আগে থাকলে ভিজিটররা বেশি দেখবে। এটাই মূলত এসইও র কাজ।

কেন আপনি SEO শিখেছেন বা শিখতে চাচ্ছেন?

আমরা এই জিনিসতা চিন্তা করিনা বিধায় আমাদের অবস্থা এমন হয় যে আপনি কোথাও SEO শিখেছেন এবং এখনো কোন ইনকাম করতে পারছেন না। আপনাকে আগে বুঝতে হবে আপনি কেন SEO শিখবেন। 

আসুন আমরা একটু বিস্তারত জানার চেষ্টা করি। 

SEO মানুষ ৩ টি কারণে শিখে থাকে। 

  1. নিজে বিষয়টি জানার জন্য
  2. কোন ক্লাইন্ট এর কাজ করার জন্য
  3. নিজে স্বাবলম্বী ভাবে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং বা কোন পণ্য বিক্রি করার জন্য।

এখন আসুন এই ৩ টি বিষয় আরেক্টু ভালোভাবে বোঝার চেষ্টা করি। অনেকেই আছেন অনলাইন ভালোবাসেন যারা নতুন নতুন বিষয় সম্পর্কে জানতে ভালোবাসে। এবং এখানে সে শুধু বিষয় টি জানতে চায় আসলে এই জিনিসটা আসলে কি তারা এই ক্যটাগরির ভেতর পরে। তবে আমার জানা মতে এদের সংখ্যা অনেক কম। 

২য় ক্যাটাগরি - কোণ ক্লাইন্ট এর কাজ করার জন্য সে SEO শিখে থাকে। এদেরকে আমরা বলে থাকি ফ্রিলান্সার। এখানে আপনাকে কোন ক্লাইন্ট কাজ দেবে আপনি তার সাইট বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিন সাইটে র‍্যাঙ্কিং এর কাজ করবেন। এবং এজন্য আপনাকে আপনার ক্লাইন্ট টাকা দেবে। এই সেক্টরে অনেক অনেক লোক আপনি পাবেন।

৩য় ক্যাটাগরি - আপনি নিজের জন্য কাজ করবেন। এখানে আপনার নিজের কোন বস নেই আপনি নিজেই একটা কোম্পানি। এখানে আপনি নিজের বা অন্য কারো প্রোডাক্ট বিক্রি করার উদ্যেশ্যে নিজের একটি সাইট করবেন এবং তাদের পণ্য বিক্রি করে একটি কমিশন নেবেন। এটা হতে নিজের পণ্য বা অন্যের পণ্য। মুল কথা হচ্ছে এখানে আপনি নিজের স্বাধীনমত কাজ করতে পারবেন। এবং আপনি টাকা তখনই ইনকাম করতে পারবেন যখন সেখানে কোন বিক্রি হবে। এছাড়া আরো অনেক কাজ আছে শুধু যে পণ্য বিক্রি করা তা না এখানে এমনও ইনকামের ব্যবস্থা আছে যে আপনার সাইটে ভিজিটর আসলেই সেখান থেকে একটা ইনকাম হতে পারে। যাই হোক এটা সম্পূর্ণ আপনার অ্যাসেট। 

এখন জানুন SEO করতে কি টাকা লাগে?

বিশেষ করে আমাদের অনেকেরই ধারনা SEO করতে টাকা লাগেনা। এটা ফ্রি ম্যাথড। আসলেই কি এটা ফ্রি ম্যাথোড? আচ্ছা, চলুন জেনে নেই আসলে এটা ফ্রি না পেইড ম্যাথড।

আপনি যদি কোন ক্লাইন্ট এর কাজ করতে চান কণ ফ্রিলান্সার মারকেটপ্লেসে সে ক্ষেত্রে আপনার টাকা জাগবেনা। তবে হ্যাঁ, কিছু কিছু কাজ আছে যেখানে কিছু টাকা লাগে। 

আর আপনি যদি SEO শিখে নিজে অ্যাফিলিয়েট বা অন্য কোণ কাজ করতে চান তাহলে আপনাকে অবশ্যই টাকা ইনভেস্ট করতে হবে। যেমনঃ আপনার লাগবে নিজের ওয়েবসাইট, ভালো একটি পেইড থিম, পেইড কিছু প্লাগিন লাগতে পারে। আপনার লাগবে আর্টিকেল। এক্ষেত্রে আপনার ভালো একটা ইনভেস্টমেন্ট লাগবে। 

এখানে এই জিনিসটা মাথায় রাখা দরকার যে আপনি SEO শিখবেন পরবর্তীতে নিজের কাজ করলে ইনভেস্ট করতে পারবেন কিনা এবং ক্লাইন্ট এর কাজ করতে চাইলে মারকেটপ্লেস সম্পর্কে ভালো ধারনা আছে কিনা। 

SEO শিখলে কি লাভ হবে?

অনেকেই হয়তোবা ভাবছেন আমি যদি তাহলে SEO শিখি এখান থেকে কি হবে আমার? আপনি যদি অনলাইন এ কাজ করতে চান তাহলে SEO বেসিক একটা জিনিশ। এটা আপনার জানা দরকার। তবে হ্যাঁ, তাদের জন্যই আমি একথা বলছি যারা দূরদৃষ্টি সম্পূর্ণ। আপনি একটা SEO কোর্স করেই হাজার হাজার ডলার ইনকাম করতে পারবেন না। তবে আপনি যদি ১ ত্বই বিষয় নিয়ে লেগে থাকেন তাহলে আপনি অনেক কিছুই করতে পারবেন।

আমার এক স্টুডেন্ট তার ১ টি ওয়েবসাইটের পেছনে ১ বছরে খরজ করেছে ১০ লক্ষ টাকা। ১ বছর পর থেকে তার এখন প্রতি মাসে ইনকাম আছে ১০০০ ডলার ওই সাইট থেকে। এবং তার ওই ওয়েবসাইট এখন ১৬,০০০ ডলারে একটি কোম্পানি অফার করছে। তবে সে এই দামে তার ওয়েবসাইট বিক্রি করবেনা। তার টার্গেট আরো ১ বছর কাজ করবে এটা নিয়ে এবং ৫০,০০০ ডলারে যখন যাবে তখন বিক্রি করবে। 

তাই বলছি আপনি SEO শিখে ক্লাইন্ট এর কাজ করেও টাকা ইনকাম করতে পারবেন এবং আপনার যদি এইরকম বড় টার্গেট থাকে তাহলে আপনি অবশ্যই এখান থেকে কিছু করতে পারবেন। 

তবে হ্যাঁ, মাথায় রাখবেন - যা শিখবেন ভালোভাবে শিখবেন এবং অ্যাকশনে নামবেন। হাঁটা শিখতে চাইলে আপনাকে দাঁড়াতে হবে। তা না হলে আপনি হাটতে পারবেন না। এই কথাটা মনে রাখবেন। 

ধন্যবাদ সবাইকে। লাজুক হাসান - আমার অনলাইন ট্রেনিং সেন্টারে ফ্রি জয়েন করুন এখানে ক্লিক করুন। 

Comments (1)
  • ধন্যবাদ ভাই, অনেক তথ্যবহুল লেখা পড়লাম, ভাল লাগলো অনেক….

Comments are closed.